পাহাড় ধস: মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১৩০


সত্যবাণী ডেস্ক: দু’দিনের টানা বর্ষণে রাঙ্গামাটি, বান্দরবান ও চট্টগ্রামে পাহাড় ধসে এবং গাছ চাপায় ১২১ জন নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। এরমধ্যে চারজন সেনা সদস্যও রয়েছেন; তারা মানিকছড়ি ক্যাম্পের সদস্য।

সোমবার (১২ জুন) রাত থেকে মঙ্গলবার (১৩ জুন) ভোর পর্যন্ত পাহাড় ধসে এ দুর্ঘটনা ঘটে। ভোর থেকে বিকেল পর্যন্ত সময়ে ৯৩ জনের মরদেহ উদ্ধার করেছে ফায়ার সার্ভিস ও সেনা বাহিনীর সদস্যরা। পরে সন্ধ্যার পরে উদ্ধার করা হয় আরও কয়েকজনকে। সবশেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত মৃতের সংখ্যা ১৩০ জন। তবে মঙ্গলবার দিবাগত রাত পৌনে ১১টায় উদ্ধার কাজ স্থগিত রাখা হয়। বুধবার (১৪ জুন) সকালে উদ্ধার কাজ আবার শুরু হবে। মৃতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

এখনও উদ্ধার কাজ চলছে। তবে রাতে কাজ ধীর গতিতে এগোচ্ছে।

নিহতদের মধ্যে নারী ও শিশুসহ রাঙ্গামাটিতে ৯৮, বান্দরবানে ০৬ এবং চট্টগ্রামে ২৫ জন রয়েছেন। নিখোঁজ আছেন আরও অনেকে।

রাঙ্গামাটিতে আরও আহত আছেন ৫০ জন। যাদের মধ্যে অনেকে গুরুতর। রাঙামাটি সদর, কাউখালী, কাপ্তাই ও বিলাইছড়ি উপজেলায় পাহাড় ধসে এসব হতাহতের ঘটনা ঘটে। জেলা প্রশাসন, ফায়ার সার্ভিস, পুলিশ, সেনা বাহিনী ও স্থানীয় জনপ্রতিনিধি এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন। রাঙামাটির অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) প্রকাশ কান্তি চৌধুরী ৭৬ জন নিহত হওয়ার খবর নিশ্চিত করেছেন।

(সৌজন্যে: বাংলানিউজ)

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.