বাংলাদেশের অর্থনৈতিক অঞ্চলে ভারতীয় উদ্যোক্তাদের বিনিয়োগের আহ্বান শিল্পমন্ত্রীর


Share on Facebook0Tweet about this on TwitterShare on Google+0Email this to someonePrint this page

চঞ্চল মাহমুদ ফুলর
সিলেট করেসপন্ডেন্ট,সত্যবাণী

সিলেট থেকেঃ শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু বলেছেন, দেশি-বিদেশি বিনিয়োগকারীদের জন্য বাংলাদেশ ১০০টি বিশেষায়িত অর্থনৈতিক অঞ্চল গড়ে তুলছে। এসব অর্থনৈতিক অঞ্চলে বিনিয়োগকারীদের জন্য সরকার বিশেষ প্রণোদনা ও সুবিধা দিচ্ছে। তিনি ভারতের বিশেষ করে উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় রাজ্যগুলোর উদ্যোক্তাদেরকে এসব অর্থনৈতিক অঞ্চলে বাংলাদেশ সরকার প্রদত্ত সুবিধা নিয়ে বিনিয়োগে এগিয়ে আসার আহ্বান জানিয়েছেন।
শিল্পমন্ত্রী গত রোববার ভারতের আসামে অনুষ্ঠিত ‘এডভানটেজ আসাম’ শীর্ষক আন্তর্জাতিক বিনিয়োগ সম্মেলনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে সম্মানিত অতিথির বক্তৃতায় এ আহ্বান জানান। আসামের গৌহাটির সুরুষাই স্টেডিয়াম কমপ্লেক্সে দু’দিনব্যাপী এ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হচ্ছে। ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি এর উদ্বোধন করেন। অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে ভুটানের প্রধানমন্ত্রী তেহরিং টাবাগে, আসামের মুখ্যমন্ত্রী সারবানন্দ সনোয়াল, ভারতের বাণিজ্য ও শিল্পমন্ত্রী সুরেশ প্রভুসহ আসাম রাজ্যের মন্ত্রীরা বক্তব্য রাখেন।
আমির হোসেন আমু বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিচক্ষণ নেতৃত্বে বাংলাদেশ দ্রুত উন্নতির মহাসড়ক ধরে এগিয়ে চলেছে। নানা প্রতিকূলতা সত্ত্বেও বাংলাদেশ সহস্রাব্দের উন্নয়ন লক্ষ্য (এমডিজি) অর্জনে ঈর্ষণীয় সাফল্য অর্জন করেছে। আর্থসামাজিক অগ্রগতির অনেক সূচকে বাংলাদেশ এশিয়ার অন্য দেশগুলোকে ছাড়িয়ে গেছে। বর্তমানে বাংলাদেশ টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্য অর্জনের পাশাপাশি ২০২১ সালের মধ্যে শিল্পসমৃদ্ধ মধ্যম আয়ের এবং ২০৪১ সাল নাগাদ উন্নত ও সমৃদ্ধ বাংলাদেশ বিনির্মাণের লক্ষ্যে দ্রুত অগ্রসর হচ্ছে বলে তিনি উল্লেখ করেন।
শিল্পমন্ত্রী বলেন, বন্ধুপ্রতীম রাষ্ট্র ভারতের সাথে সুসম্পর্ককে বাংলাদেশ সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিয়ে থাকে। সাম্প্রতিক সময়ে দু’দেশের প্রধানমন্ত্রী পর্যায়ে সফর বিনিময়ের ফলে দ্বি-পাক্ষিক সম্পর্ক নতুন মাত্রা পেয়েছে। এ সফরের পর উভয় দেশ কানেকটিভিটি জোরদার, বাণিজ্য সম্প্রসারণ, ট্রানজিট ও পণ্য পরিবহণ সুবিধা বাড়াতে বেশ কিছু দূরদর্শী পদক্ষেপ নিয়েছে। এসব উদ্যোগ বিদ্যমান দ্বি-পাক্ষিক অর্থনৈতিক সম্ভাবনার পরিপূর্ণ সুফল কাজে লাগাতে ইতিবাচক অবদান রাখবে বলে তিনি আশা প্রকাশ করেন। তিনি সম্মেলনে অংশগ্রহণকারী অন্য দেশের ব্যবসায়ী ও শিল্প উদ্যোক্তাদেরকেও বাংলাদেশে বিনিয়োগ সম্ভাবনা খুঁজে দেখার আমন্ত্রণ জানান।

Share on Facebook0Tweet about this on TwitterShare on Google+0Email this to someonePrint this page

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *