‘এম এ মতলিব ছিলেন একজন ত্যাগী কমিউনিটি নেতা’


Share on Facebook0Tweet about this on TwitterShare on Google+0Email this to someonePrint this page

আলী বেবুল
সত্যবাণী

লন্ডনঃ যুক্তরাজ্যের বিশিষ্ট কমিউনিটি নেতা,রাজনীতিবিদ ও বাংলাদেশ সেন্টার লন্ডন’র স্হায়ী সদস্য মরহুম এম এ মতলিব’র স্মরণে বাংলাদেশ সেন্টার’র পক্ষ থেকে শোক সভা ও মিলাদ মাহফিল ১৫ এপ্রিল রবিবার সন্ধ্যায় লন্ডন মুসলিম সেন্টারে অনুষ্ঠিত হয়।সেন্টারের ভাইস-চেয়ারম্যান মুহিবুর রহমান মুহিব’র সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন’র পরিচালনায় অনুষ্ঠিত সভায় বক্তব্য রাখেন স্হায়ী সদস্য আশরাফ উদ্দিন,একে এম ফজলুল হক,সেন্টারের উপদেষ্টা আশেক আহমদ আশুক,আলহাজ্ব মানিক মিয়া ( সোনা মিয়া), সাংবাদিক নজরুল ইসলাম বাসন,রউফুল ইসলাম,মৌলানা রফিক আহমেদ, সাংবাদিক কে এম আবু তাহের,সাপ্তাহিক দেশ পত্রিকার সম্পাদক তাইসির মাহমুদ,শওকত মাহমুদ, ব্যারিস্টার মাসুদ আহমদ চৌধুরী, শামীম আহমদ,মামুন রশীদ, সেন্টারের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা এস এম মোস্তাফিজুর রহমান,আতাউর রহমান আতা, মাহবুব আহমদ রাজু, আলী আহমেদ বেবুল,আমিনুল হক জিলু,এম মাসুদ আহমদ,শামীম আহমদ,জবরুল ইসলাম লনি,আমিনুল ইসলাম রাবেল,দিলাল আহমদ,আব্দুল হাকিম হাদি,জাকির হোসেন,আব্দুল হান্নান,আবিদুর রহমান শীমু,কামরুল হোসেন মুন্না,এবাদুর রহমান।শোক সভায় পরিবারের পক্ষ থেকে বক্তব্য রাখেন মরহুম এম এ মতলিব’র বড় ভাই আব্দুস সহিদ ও ছোট ছেলে আব্দুল্লা আল মারুপ।সভার বক্তারা মরহুম এম এ মতলিব’র বর্ণাঢ্য কর্মময় জীবন নিয়ে আলোচনা করেন। বক্তারা বলেন, এম এ মতলিব ছিলেন একজন ত্যাগী কমিউনিটি নেতা।তাঁর চিন্তা চেতনায় সব সময় ছিল বাংলাদেশের মানুষের আর্থ-সামাজিক উন্নয়ন। মৃত্যুর পূর্ব মূহর্ত পর্যন্ত তিনি কমিউনিটির উন্নয়নের জন্য নি:স্বার্থ ভাবে কাজ করে গেছেন। বাংলাদেশ সেন্টার, বাংলাদেশ ওয়েলফেয়ার এসোসিয়েশন, বিয়ানীবাজার থানা জনকল্যাণ সমিতি ও বিয়ানীবাজার ওয়েলফেয়ার ট্রাস্টসহ বিভিন্ন সামাজিক সংগঠনে একজন দক্ষ সংগঠক হিসেবে কমিউনিটি আন্দোলনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেন। একজন ধর্মপ্রান ও সজ্জন ব্যক্তি হিসেবে তিনি সকলের নিকট পরিচিত ছিলেন। বক্তারা বলেন, তাঁর মৃত্যুতে যুক্তরাজ্যের বাংগালি কমিউনিটির অপূরণীয় ক্ষতি হয়েছে। তাঁর মতো নিষ্ঠাবান ও দেশপ্রেমিক আরেকজন মতলিবকে এ কমিউনিটিতে পাওয়া যাবেনা। শোক সভায় সেন্টারের পক্ষ থেকে একটি শোকবাণী ও শোক বই পরিবারের নিকট হস্তান্তর করা হয়। তা গ্রহণ করেন মরহুম এম এ মতলিব’র বড় ভাই আব্দুস সহিদ ও ছোট ছেলে আব্দুল্লা আল মারুপ।শোক সভা শেষে দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়। দোয়া মাহফিল পরিচালনা করেন সেন্টারের খতিব হাফিজ নাজিম উদ্দিন।উল্লেখ্য এম এ মতলিব এ বছরের ২১ ফেব্রুয়ারি বিয়ানীবাজার উপজেলার পুরুষপাল গ্রামে তাঁর নিজবাড়ীতে আকস্মিক ভাবে ইন্তেকাল করেন।

image1image2

Share on Facebook0Tweet about this on TwitterShare on Google+0Email this to someonePrint this page

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *