কেবিনেট মিটিংয়ে যোগ দিলেন টাওয়ার হ্যামলেটসের ইয়াং মেয়র ও তার টিম 


Share on Facebook0Tweet about this on TwitterShare on Google+0Email this to someonePrint this page
নিউজ ডেস্ক
সত্যবাণী
লন্ডন: টাওয়ার হ্যামলেটসের ইয়াং মেয়র এবং তার দল প্রথমবারের মতো টাওয়ার হ্যামলেটস কেবিনেটের সাথে বৈঠক করেছেন।
কেবিনেট মিটিংয়ে বক্তৃতাকালে বারার ইয়াং মেয়র জামি বারি এবং তাঁর ডেপুটিরা তাদের মেয়াদকালে তারা যে কাজগুলি করবেন, সেসম্পর্কে বিস্তারিত পরিকল্পনা তুলে ধরেন।
ইয়াং মেয়র অব টাওয়ার হ্যামলেটস জামি বারি বলেন, আমার বয়স ১৬ এবং একজন ব্রিটিশ বাংলাদেশি হিসেবে আমি গর্বিত। আমি এমন এক পরিবার থেকে এসেছি, যারা আমাকে সর্বাত্মক সহযোগিতা করে যাচ্ছে এবং আমার অভিভাবকদের কাছ থেকে যদি এই সহযোগিতা না পেতাম, তাহলে আজ আমি যেখানে আছি, সেখানে কখনোই আসতে পারতাম না। আমি তাদের কাছে চির কৃতজ্ঞ।
ইয়াং মেয়র জামি বলেন, টাওয়ার হ্যামলেটসের জন্য আমার ভিশন বা দৃষ্টিভঙ্গি খুবই সাধারণ। লোকজনকে সাহায্য করার আগ্রহ আমার সব সময়ই রয়েছে এবং টাওয়ার হ্যামলেটসকে আরো নিরাপদ, সুখি ও পরিচ্ছন্ন বারা হিসেবে গড়ে তুলতে কঠোর পরিশ্রম করে যাওয়াই আমরা লক্ষ্য।
9666B77E-E1F9-4584-B075-F8486B935ECAনির্বাহী মেয়র জন বিগস বলেন, কেবিনেট মিটিংয়ে জামি এবং তার টিমের কাছ থেকে তাদের কাজের প্রতি গভীর আগ্রহের কথা শুনে আমি অনুপ্রাণিতবোধ করছি। আমি এটা জানি যে, কাউন্সিল যাতে বারার তরুণ জনগোষ্টির বক্তব্য গুরুত্বের সাথে শুনে, তা নিশ্চিত করতে তারা সর্বাত্মক চেষ্টা করে যাবে। ইয়াং মেয়র এবং তার ডেপুটিদের সাথে কাজ করার জন্য আমি অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করছি।
গত মার্চ মাসে অনুষ্ঠিত ইয়াং মেয়র নির্বাচনে বিপুল ভোটে বিজয়ী জামি মানসিক স্বাস্থ্য ক্ষেত্রে পরিবর্তন আনার প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন। মানসিক স্বাস্থ্য সংক্রান্ত জটিলতায় আক্রান্ত ৭০ শতাংশ শিশু ও কিশোর-তরুণরা  বয়স যথেষ্ট কম থাকাবস্থায় উপযুক্ত সহযোগিতা পায়না।
কাউন্সিল কিভাবে তরুণ বয়সীদের সাথে যোগাযোগ করবে সেসম্পর্কে নিজেদের আইডিয়াসমূহ এবং মেয়াদকালীন সময়ের জন্য কর্মপরিকল্পনা তুলে ধরেন ইয়াং মেয়রের দলের অন্যান্য সদস্যরা।
উল্লেখ্য, ইয়াং মেয়র ও তাঁর ডেপটি মেয়ররা দুই বছর দায়িত্ব পালন করবেন এবং বারার তরুণ জনগোষ্টির কণ্ঠস্বর হিসেবে কাজ করাই হচ্ছে তাদের মূল দায়িত্ব। ইয়াং মেয়র ও ডেপুটি মেয়ররা নির্বাহী মেয়র ও অন্যান্য কেবিনেট সদস্যের ছায়া হিসেবে কাজ করবেন। যেমন, ইয়াং মেয়র অব  টাওয়ার হ্যামলেটস জামি বারি নির্বাহী মেয়র জন বিগসের ছায়া হিসেবে, কেবিনেট মেম্বার ফর এনভায়রনমেন্ট কাউন্সিলর ডেভিড এডগারের ছায়া হিসেবে ডেপুটি ইয়াং মেয়র আহমেদ ডুলে, কেবিনেট মেম্বার ফর সোশ্যাল এন্ড ইকোনোমিক গ্রোথ কাউন্সিলর মতিন উজ-জামানের ছায়া হিসেবে ডেপুটি ইয়াং মেয়র দাউদ ইসলাম, কেবিনেট মেম্বার ফর হেলথ এন্ড ওয়েলবিয়িং কাউন্সিলর আমিনা আলীর ছায়া হিসেবে ডেপুটি ইয়াং মেয়র ভিভিয়ান আকিনরেমি, কেবিনেট মেম্বার ফর কমিউনিটি কাউন্সিলর আসমা বেগমের ছায়া হিসেবে ডেপুটি ইয়াং মেয়র নাদিয়া হোসেইন এবং কেবিনেট মেম্বার ফর কমিউনিকেশন কাউন্সিলর ড্যানি হ্যাসেলের ছায়া হিসেবে ডেপুটি ইয়াং মেয়র মুহসিন মাহমুদ দায়িত্ব পালন করবেন।
Share on Facebook0Tweet about this on TwitterShare on Google+0Email this to someonePrint this page

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *